বুধবার, ০৩ অক্টোবর ২০১৮, ০৩:০৪ অপরাহ্ন

ছাত্রলীগ নেতার বিরুদ্ধে যুবলীগ নেতাকে কোপানোর অভিযোগ

পটুয়াখালীর মির্জাগঞ্জ উপজেলা যুবলীগের সহ-সভাপতি ও আমড়াগাছিয়া ইউনিয়নের ইউপি সদস্য রুহুল কুদ্দুসকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জখম করেছে দুর্বৃত্তরা।

মঙ্গলবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় আমড়াগাছিয়া ইউপি কার্যালয় সংলগ্ন বটতলা বাজারের এ ঘটনায় আহত রুহুল কুদ্দুসকে স্থানীয় লোকজন উদ্ধার করে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসে। অবস্থার অবনতি ঘটলে কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. মতিউর রহমানের পরামর্শে তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

হামলার ঘটনায় মঙ্গলবার রাতে আহতের ভাই মশিউর রহমান বাদী হয়ে সুবিদখালী কলেজ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শাকিল হোসেন শায়েক, খাইরুল আলম শাহীনসহ চারজনের নাম উল্লেখসহ ১০/১২জনকে অজ্ঞাত আসামি করে মির্জাগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।

আহত রুহুল কুদ্দুস জানান, ঘটনার দিন সন্ধ্যায় বটতলা বাজারের একটি চায়ের দোকানে আড্ডা দেওয়ার সময় সরকারি সুবিদখালী কলেজ ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শায়েকের নেতৃত্বে ১০/১২জন যুবক দেশীয় অস্ত্র দিয়ে তার উপর এলোপাতাড়ি হামলা চালায়। এ সময় ধারালো অস্ত্রের আঘাতে তার মাথাসহ শরীরের বিভিন্ন অংশ গুরুতর জখম হয়।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে শাকিল হোসেন শায়েক বলেন, রুহুল কুদ্দুসের সঙ্গে কোনো বিরোধ নেই। হামলার সময়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত ছিলাম না। আমাকে ফাঁসানো হয়েছে।

মির্জাগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এমআর শওকত আনোয়ার ইসলাম বলেন, আসামিদের গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।