বুধবার, ০৩ অক্টোবর ২০১৮, ০৩:০৪ অপরাহ্ন

ডা. শাহ আলমের খুনিদের গ্রেপ্তার ও শাস্তি দাবিতে চট্টগ্রাম বিএমএ’র মানববন্ধন

সৌদি আরবের মদিনা হাসপাতালে শিশু বিভাগের সাবেক প্রধান ডা. মো. শাহ আলমকে হত্যার ঘটনায় জড়িতদের গ্রেপ্তার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছেন বাংলাদেশ মেডিকেল অ্যাসোসিয়েশনের (বিএমএ) চট্টগ্রাম শাখা। 

চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের মেইন গেইটের সামনে আয়োজিত মানববন্ধন ও প্রতিবাদ সমাবেশে এ দাবি জানানো হয় বলে আজ সোমবার (২১ অক্টোবর) চট্টগ্রাম বিএমএ’র সাংগঠনিক সম্পাদক ডা. এস এম মুইজ্জুল আকবর চৌধুরী স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা জানানো হয়। 

চট্টগ্রাম বিএমএ সভাপতি অধ্যাপক ডা. মুজিবুল হক খানের সভাপতিত্বে ও সাংগঠনিক সম্পাদক ডা. এস এম মুইজ্জুল আকবর চৌধুরীর সঞ্চালনায় এ সমাবেশে চট্টগ্রামের সর্বস্তরের চিকিৎসক ও চিকিৎসা বিজ্ঞানের ছাত্র-ছাত্রীবৃন্দের অংশগ্রহণ করেন।

স্বনামধন্য এ শিশুরোগ বিশেষজ্ঞের অনাকঙ্ক্ষিত মৃত্যুতে উপস্থিত চিকিৎসকরা ক্ষুব্ধ মনোভাব ব্যক্ত করে বলেন, হত্যাকাণ্ডের পর তিনদিন পার হয়ে গেলেও কোনো আসামি গ্রেপ্তার না হওয়ায় তারা ক্ষুব্ধ ও হতাশ। 

এ সময় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীসহ সংশ্লিষ্ট সকলের পূর্ণ দায়িত্বশীলতা প্রত্যাশা করেন তারা। পাশাপাশি ঘটনার দ্রুত ও সুষ্ঠ তদন্তের মাধ্যমে অনতিবিলম্ভে খুনিদের গ্রেপ্তার, দ্রুত বিচার আদালতে বিচার ও সর্বোচ্চ সাজা নিশ্চিতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানান তারা। 

সমাবেশে বিএমএ নেতৃবৃন্দ চিকিৎসকদের নিরাপদ কর্মস্থল ও নিরাপদ কর্মজীবনের নিশ্চয়তার জন্য দাবি জানিয়ে বলেন, অনতিবিলম্বে ডা. শাহ আলমের খুনিদের গ্রেপ্তার করতে হবে। অন্যথায় অধিকার ও নিরাপত্তা জন্য বৃহত্তর কর্মসূচি গ্রহণে বাধ্য হবেন তারা।

প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন চমেক অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. সেলিম মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর, উপাধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. নাসির উদ্দীন মাহমুদ, চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতাল মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. মোস্তাক আহমেদ, বিএমএ সহ-সভাপতি ডা. মো. মনোয়ারুল হক শামীম, কোষাধ্যক্ষ ডা. মো. আরিফুল আমিন, যুগ্ন সম্পাদক ডা. মো. রবিউল করিম, বিজ্ঞান বিষয়ক সম্পাদক ডা. মো. নুর হোসেন ভুইয়া, দপ্তর সম্পাদক ডা.আবুল হোসেন শাহীন, প্রচার সম্পাদক ডা. প্রনয় কুমার দত্ত, সাংস্কৃতিক সম্পাদক ডা. সত্যজিৎ রায়, প্রকাশনা সম্পাদক ডা. নুর উদ্দীন জাহেদ, পোস্ট গ্রাজুয়েট স্টুডেন্ড অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি ডা. মো. সাইফুদ্দিন আহমেদ সাইফ, চমেক ইন্টার্ন অ্যাসোসিয়েশনের আহ্বায়ক ডা. নাইমুল ইসলাম ও সদস্য সচিব ডা. সাইফুল ইসলাম মুরাদ চমেক ছাত্রলীগের সভাপতি হাবিবুর রহমান ও সাধারণ সম্পাদক শিমুল, চমেকসু ভিপি এমএ আউয়াল রাফি ও জিএস প্রিতম সাহা প্রমুখ।

প্রসঙ্গত, চট্টগ্রাম সিতাকুণ্ড উপজেলার কুমিরার বাসিন্দা বিশিষ্ট শিশু রোগ বিশেষজ্ঞ, সৌদি আরবের মদিনা হাসপাতালে শিশু বিভাগের সাবেক প্রধান ডা. শাহ আলমকে (৫০) গত বৃহস্পতিবার (১৭ অক্টোবর) হত্যা করে দুর্বৃত্তরা। পরে চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ড উপজেলার কুমিলায় মহাসড়কের পাশে একটি নির্জন স্থানে লাশ ফেলে রাখা হয়। পরে সেখান থেকে শুক্রবার (১৮ অক্টোবর) দুপুরে মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। 

ডা. শাহ আলম চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের ২০তম ব্যাচের শিক্ষার্থী ছিলেন।