আমরা নিরপেক্ষ নই আমরা সত্যের পক্ষে

কেন এক সপ্তাহের জন্য বিধিনিষেধ শিথিল

news-image

মানুষের জীবন-জীবিকা এবং চলাচলে অসুবিধা হওয়ায় কঠোর বিধিনিষেধ কিছুটা শিথিল হলেও যেকোনও সময় এই সিদ্ধান্তে পরিবর্তন আসতে পারে বলে জানিয়েছেন জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন। রবিবার (২৩ মে) চলমান বিধিনিষেধ ৩০ মে পর্যন্ত বাড়ানো নিয়ে প্রজ্ঞাপন জারির পর ফরহাদ হোসেন সাংবাদিকদের এ কথা জানান।

মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের এক প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, করোনাভাইরাস জনিত রোগ কোভিড-১৯ সংক্রমণের বর্তমান পরিস্থিতি বিবেচনা করে সব বিধিনিষেধ ও কার্যক্রমের ধারাবাহিকতায় বিধিনিষিধের সময়সসীমা ২৩ মে মধ্যরাত থেকে ৩০ মে মধ্যরাত পর্যন্ত বাড়ানো হলো।
ফরহাদ হোসেন বলেন, ‘দীর্ঘদিন গাড়ি বন্ধ থাকার কারণে কাজকর্মে বেশ কিছু সমস্যা হচ্ছে। সব কিছু বিবেচনা করেই আমরা এক সপ্তাহের জন্য শিথিলের সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আমরা পর্যবেক্ষণ করছি এবং জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের সঙ্গে আলোচনা সাপেক্ষে অল্প করে শিথিল করে দেখা হচ্ছে। করোনা বেড়ে গেলে যেকোনও সময় সিদ্ধান্তের পরিবর্তন করতে হবে।’ যারা ভ্যাকসিন নেননি তারা ঝুঁকির মধ্যে আছেন উল্লেখ করে সবাইকে মাস্ক পরতে হবে বলে জানান তিনি।

নতুন নিয়মে আন্তঃজেলাসহ সব ধরনের গণপরিবহন আসন সংখ্যার অর্ধেক যাত্রী নিয়ে চলাচল করতে পারবে। তবে অবশ্যই যাত্রীসহ সংশ্লিষ্ট সবাইকে মাস্ক পরিধানসহ সব স্বাস্থ্যবিধি মানতে হবে। আর হোটেল-রেস্তোরাঁ ও খাবারের দোকানগুলোতে আসন সংখ্যার অর্ধেক গ্রাহককে বসিয়ে খাওয়ানো যাবে।