আমরা নিরপেক্ষ নই আমরা সত্যের পক্ষে

ঘুম থেকে ডেকে নিয়ে যুবককে গুলি করে হত্যা

news-image

কুষ্টিয়া সদর উপজেলার ভাদালিয়া দরবেশপুর গ্রামে পূর্ব বিরোধ ও আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের গুলিতে রাজু আহম্মেদ (৩৫) নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার (২৩ সেপ্টেম্বর) দিবাগত রাত ১টার দিকে এ হত্যাকাণ্ড ঘটে। পুলিশ এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য চারজনকে আটক করেছে। কুষ্টিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাব্বিরুল আলম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, গভীর রাতে প্রতিপক্ষ আবু বক্কর ছিদ্দিক গ্রুপের একদল লোকজন অকস্মাৎ রাজুর বাড়ি ঘেরাও করে এবং বাড়িতে প্রবেশের পর ঘুমন্ত রাজুকে ডেকে নিয়ে দুর্বত্তরা তার উপর গুলি চালায়। এতে গুলিবিদ্ধ রাজু মাটিতে পড়েন। পরে পরিবারের লোকজন ও স্থানীয়রা গুলিবিদ্ধ রাজুকে উদ্ধার করে কুষ্টিয়া ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে নেওয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। নিহত রাজু মামুন অর-রশিদ গ্রুপের সমর্থক ও দরবেশপুর গ্রামের মুন্তা মন্ডলের ছেলে। তিনি একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করতেন।

উল্লেখ্য, আধিপত্য বিস্তার নিয়ে ওই এলাকায় দুই গ্রুপের দীর্ঘদিনের সংঘাত-সংঘর্ষ ও খুন-খারাবি চলে আসছে। এ হত্যাকাণ্ডের ফলে আবারো এলাকায় অশান্ত হয়ে উঠতে পারে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

এদিকে এ ঘটনায় নিহতের পরিবার ও এলাকাবাসীর চরম ভীতি দেখা দিয়েছে। পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে পাঠিয়েছে। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত থানায় মামলা হয়নি। তবে মামলা দায়েরর প্রস্তুতি চলছিল বলে পুলিশ জানিয়েছে। এদিকে পুলিশ অভিযান চালিয়ে শুক্রবার ভোরে চারজনকে আটক করা হয়েছে বলে থানার ওসি সাব্বিরুল আলম জানান।

কুষ্টিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাব্বিরুল আলম সত্যতা স্বীকার করে জানান, বিবাদমান দুই গ্রুপের দ্বন্দ্বে জের ধরেই হত্যাকান্ডের ঘটনাটি ঘটেছে। এলাকার পরিস্থিতি বর্তমানে শান্ত রয়েছে। দোষীদের চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনা হবে বলে তিনি জানান।

এ জাতীয় আরও খবর