আমরা নিরপেক্ষ নই আমরা সত্যের পক্ষে

‘ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের দেশে আসার কোনো সম্ভবনা নেই’

news-image

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের বাংলাদেশে আসার কোনো সম্ভবনা নেই বলে জানিয়েছে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. মো. এনামুর রহমান।

আজ বুধবার (২৬ মে) দুপুরে সচিবালয়ে ব্রিফিংয়ে এসব কথা জানান তিনি।

ডা. মো. এনামুর রহমান জানিয়েছেন, বাংলাদেশে ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের আঘাত হানার আর কোনও আশঙ্কা নেই। এটি ভারতের ওড়িশার উপর দিয়ে অতিক্রম করছে। আর বিকেল ৪টার মধ্যে শেষ হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

ঘূর্ণিঝড় ইয়াসের কারণে উপকূলবর্তী মোট ২৭টি উপজেলা ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে বলেও জানান প্রতিমন্ত্রী।

অতি প্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘ইয়াস’ ভারতের ওড়িশায় আঘাত হেনেছে। রাজ্যের বালেশ্বরের কাছে ধামড়ায় ঘণ্টায় ১৩০-১৪০ কি.মি বেগে আছড়ে পড়তে শুরু করেছে এটি। আগামী ৩ ঘণ্টা ধরে এই চলবে বলে জানিয়েছে ভারতের আবহওয়া অফিস। ঘূর্ণিঝড়টির প্রভাবে দেশের উপকূলবর্তী এলাকার নিম্নাঞ্চল জলোচ্ছ্বাসে তলিয়ে গেছে। চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, মোংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দরকে ৩ নম্বর স্থানীয় সতর্ক সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে।

বুধবার সকাল সাড়ে ৯টায় বাংলাদেশ আবহাওয়া অধিদপ্তরের দেওয়া সর্বশেষ ১৭ নং বিশেষ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, উত্তর-পশ্চিম বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থানরত প্রবল ঘূর্ণিঝড় ‘ইয়াস’ আরও উত্তর-উত্তরপশ্চিম দিকে অগ্রসর ও ঘনীভূত হয়ে একই এলাকায় অবস্থান করছে। এটি গত মধ্যরাত ১২টার দিকে চট্টগ্রাম সমুদ্রবন্দর থেকে ৫২০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে, কক্সবাজার সমুদ্রবন্দর থেকে ৫২০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পশ্চিমে, মোংলা সমুদ্রবন্দর থেকে ৩১০ কিলোমিটার দক্ষিণ-দক্ষিণপশ্চিমে ও পায়রা সমুদ্রবন্দর থেকে ৩৫৫ কিলোমিটার দক্ষিণ-দক্ষিণপশ্চিমে অবস্থান করছিল।