আমরা নিরপেক্ষ নই আমরা সত্যের পক্ষে

চট্টগ্রামের অবৈধ ইটভাটা উচ্ছেদে বাধা কাটল

news-image

চট্টগ্রামের কয়েকটি অবৈধ ইটভাটা উচ্ছেদে গত ২২ মার্চ হাইকোর্টের দেওয়া নিষেধাজ্ঞা স্থগিত করেছেন আপিল বিভাগের চেম্বার বিচারপতি হাসান ফয়েজ সিদ্দিকী। একইসঙ্গে হাইকোর্টের আদেশের বিরুদ্ধে করা পরিবেশ অধিদপ্তরের আবেদনের ওপর আগামী ২১ জুন আপিল বিভাগের পূর্নাঙ্গ বেঞ্চে শুনানির জন্য দিন ধার্য করা হয়েছে।

বৃহষ্পতিবার এ আদেশ দেওয়ায় অবৈধ ইটভাটা উচ্ছেদে আইনগত বাঁধা থাকলো না বলে জানিয়েছেন আইনজীবী। পরিবেশ অধিদপ্তরের করা এক আবেদনে এ আদেশ দেন আদালত। পরিবেশ অধিদপ্তরের পক্ষে আইনজীবী ছিলেন অ্যাডভোকেট মনজিল মোরশেদ ও অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম কিরন।

অ্যাডভোকেট মনজিল মোরশেদের বক্তব্য আপিল বিভাগের আদেশের তথ্য গোপন করে হাইকোর্ট থেকে আদেশ নেওয়া হয়। চেম্বার বিচারপতির আদালত হাইকোর্টেল এ আদেশ স্থগিত করেছেন।

চট্টগ্রামের সকল অবৈধ ইটভাটা বন্ধ ও উচ্ছেদের জন্য গতবছর ১৪ ডিসেম্বর, চলতি বছরের ৩১ জানুয়ারি ও ২৫ ফেব্রুয়ারি আদেশ দেন হাইকোর্ট। চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক(ডিসি) ও পরিবেশ অধিদপ্তরের পরিচালকের প্রতি এ নির্দেশ দেওয়া হয়। হাইকোর্টের এ আদেশের বিরুদ্ধে ইটভাটার মালিকরা আপিল বিভাগে আবেদন করলেও আপিল বিভাগ হাইকোর্টের আদেশ স্থগিত করেননি। এ অবস্থায় আদালতের আদেশ কার্যকর করতে জেলা প্রশাসন আদালতে কাছ থেকে কয়েকদফা সময় নেওয়া হয়। কিন্তু এরপরও অবৈধ ইটভাটা বন্ধ না হওয়ায় জেলা প্রশাসকসহ সংশ্লিস্টদের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার রুল জারি করা হয়। এই রুল বিচারাধীন থাকাবস্থায় ইটভাটা মালিকরা হাইকোর্টে পৃথক ৮টি রিট আবেদন দাখিল করেন। এ রিট আবেদনে হাইকোর্ট গত ২২ মার্চ এক আদেশে ৪৫ দিনের মধ্যে ইটভাটাগুলো উচ্ছেদ না করার নির্দেশ দেন। এই আদেশের বিরুদ্ধে আপিল বিভাগের চেম্বার বিচারপতির আদালতে আবেদন করে পরিবেশ অধিদপ্তর।