আমরা নিরপেক্ষ নই আমরা সত্যের পক্ষে

চতুর্থ শ্রেণির শিক্ষার্থীর অনুরোধ ও প্রধানমন্ত্রীর আশ্বাস, সেতু হচ্ছে পায়রা নদীতে

news-image

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে পায়রা নদীর ওপর একটি সেতু নির্মাণের অনুরোধ করে চতুর্থ শ্রেণির এক শিক্ষার্থী চিঠি দিয়েছিল। সেই চিঠির উত্তরে প্রধানমন্ত্রী সেতু নির্মাণের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে আশ্বস্ত করেন।

শীর্ষেন্দু বিশ্বাস নামে পটুয়াখালী সরকারি জুবিলী উচ্চ বিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণির এক শিক্ষার্থী ২০১৬ সালে দেয়া চিঠিতে মির্জাগঞ্জ পায়রা নদীর ওপর ওই সেতু নির্মাণের সেই অনুরোধ করেন।

অবশেষে শীর্ষেন্দু বিশ্বাসের সেতু নির্মাণের সেই অনুরোধ বাস্তবায়িত হচ্ছে। সরকার ইতোমধ্যে পটুয়াখালী-কচুয়া আঞ্চলিক মহাসড়কের ওপর পায়রাকুঞ্জ এলাকায় সেতুটি নির্মাণের জন্য ১ হাজার ৪২ কোটি টাকা বরাদ্দ দিয়েছে।

১ দশমিক ৬ কিলোমিটার দীর্ঘ ও ১০ দশমিক ৩ মিটার প্রস্তের সেতুটির নির্মাণ কাজ শেষ হবে ২০২৫ সালে। সেতু নির্মাণে পুরো ব্যয় সরকারের নিজস্ব খাত থেকে বহন করা হবে।

বুধবার বিকেলে সেতুর নির্মাণস্থল পরিদর্শনে গিয়ে সেতু বিভাগের সচিব ও সেতু কর্তৃপক্ষের নির্বাহী পরিচালক মো. আবু বকর ছিদ্দীক এ কথা জানান।

তিনি বলেন, ‘পটুয়াখালী সরকারি জুবিলী উচ্চ বিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণির শিক্ষার্থী শীর্ষেন্দু বিশ্বাসের চিঠির উত্তরে প্রধানমন্ত্রী সেতুটি নির্মাণের আশ্বাস দেন। তার আশ্বাসেই সেতুটি নির্মিত হচ্ছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘ইতোমধ্যে দরপত্র আহ্বান করা হয়েছে এবং সেগুলোর মূল্যায়নের কাজ চলছে। আশাকরি ২ থেকে ৩ মাসের মধ্যে ঠিকাদার নিয়োগ চূড়ান্ত হবে এবং শিগগিরই কাজ শুরু হবে।’

এ সময় সেতু বিভাগের ও পটুয়াখালী জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।