আমরা নিরপেক্ষ নই আমরা সত্যের পক্ষে

ঝিনাইদহে নির্বাচন–পরবর্তী সহিংসতায় নিহত ১, এক ইউনিয়নে খুন ৫ জন

news-image

ঝিনাইদহের শৈলকুপার সারুটিয়া ইউনিয়নে নির্বাচন–পরবর্তী সহিংসতায় আরেকজন নিহত হয়েছেন। গতকাল শুক্রবার রাতে মেহেদী হাসান (২৫) নামের এক যুবককে পিটিয়ে ও কুপিয়ে হত্যা করেন প্রতিপক্ষের লোকজন।

নিহত মেহেদী সারুটিয়া গ্রামের দবির উদ্দিন শেখের ছেলে। এ নিয়ে ৫ জানুয়ারির ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনকে কেন্দ্র করে সহিংসতায় গত ২৩ দিনে সারুটিয়া ইউনিয়নে ৫ জন খুন হলেন।
স্থানীয় লোকজন বলেন, সারুটিয়া ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান আওয়ামী লীগের মাহমুদুল হাসান ও পরাজিত একই দলের বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থী জুলফিকার কায়সার–এর মধ্যে বিরোধ আছে। এরই অংশ হিসেবে গতকাল রাত সাড়ে ৯টার দিকে ইউনিয়নের তালতলা ব্রিজে বর্তমান চেয়ারম্যানের সমর্থকেরা প্রতিপক্ষ জুলফিকারের সমর্থক মেহেদীকে পিটিয়ে ও কুপিয়ে গুরুতর জখম করেন। স্বজনেরা তাঁকে উদ্ধার করে শৈলকুপা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। সেখানে চিকিৎসক তাঁকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পরামর্শ দেন। দিবাগত রাত দুইটার দিকে তাঁর মৃত্যু হয়।

নিহত মেহেদীর মা ইয়াসমিন বেগম বলেন, তাঁর ছেলে একজনের হয়ে ভোট করেছে, এটাই তাঁর অপরাধ। বর্তমান চেয়ারম্যানের লোকজন তাঁকে হত্যা করেছেন। তিনি এই হত্যার বিচার চান।
বর্তমান চেয়ারম্যান মাহমুদুল হাসান সাংবাদিকদের বলেন, নিহত মেহেদী আগে যে দলই করুন না কেন, গত বৃহস্পতিবার থেকে তাঁর সমাজের লোকজনের সঙ্গে মিশেছিলেন। যাঁরাই হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছেন, তাঁদের উপযুক্ত বিচার হোক; সেই দাবি করেন তিনি। অপরাধীদের কোনো ছাড় দেওয়া হবে না।

শৈলকুপা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রফিকুল ইসলাম বলেন, উপজেলার সারুটিয়া গ্রামের মেহেদী নামের একজনকে কুপিয়ে আহত করেন প্রতিপক্ষের লোকজন। ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তিনি মারা যান। নির্বাচনী সহিংসতায় এই হত্যাকাণ্ড বলে তাঁরা প্রাথমিকভাবে ধারণা করছেন। ঘটনার সঙ্গে জড়িত ব্যক্তিদের আটকের চেষ্টা চলছে বলে তিনি জানান।

এ নিয়ে পঞ্চম ধাপের নির্বাচনে ঝিনাইদহের শৈলকুপা উপজেলার সারুটিয়া ইউনিয়নে নির্বাচনী সহিংসতায় পাঁচজন মারা গেলেন। গত ৩১ ডিসেম্বর নৌকার নির্বাচনী কার্যালয়ে হামলায় অখিল সরকার, হারান আলী ও আবদুর রহিম এবং ১ জানুয়ারি ছুরিকাঘাতে জসিম উদ্দিন প্রাণ হারান। এ ছাড়া ৮ জানুয়ারি উপজেলার বগুড়া ইউনিয়নে প্রতিপক্ষের হামলায় কল্লোল হোসেন নামের একজন মারা যান।

এ জাতীয় আরও খবর

নারায়নগঞ্জে ৪১৪ জন শিক্ষককের আড়াই কোটি টাকা হাতিয়ে নিলেন জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা শরিফুল ইসলাম

দৌলতদিয়ায় ৭ ফেরিঘাটের ৪টিই বিকল, যানবাহনের দীর্ঘ সারি

পানির নিচে পন্টুন, ঘাটে যানবাহনের দীর্ঘ সারি

ছাত্রদল করা সন্তানের জনক হলেন থানা ছাত্রলীগের সহসভাপতি

যমুনা নদীতে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন

চাঁদপুরের ডিসিকে বদলি, তিন জেলায় নতুন ডিসি

গাফফার চৌধুরী আর নেই

প্রধান শিক্ষিকার বিরুদ্ধে ভূমি দখলের পাঁয়তারার অভিযোগ

কুমিল্লার মানবজমিন প্রতিনিধিসহ সারাদেশের সাংবাদিকদের উপর হামলার প্রতিবাদে সোচ্চার রূপগঞ্জ প্রেসক্লাব ॥ প্রতিবাদ সভা, মানববন্ধন-বিক্ষোভ মিছিল

চাকরির নামে টাকা আত্মসাৎ গ্রেপ্তার ২

মহাসড়কে গাছ ফেলে ডাকাতি করতো তারা, গ্রেফতার ৬

বনের ভেতর সিসা তৈরির কারখানা, হুমকির মুখে পরিবেশ