আমরা নিরপেক্ষ নই আমরা সত্যের পক্ষে

দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষে আহত ২০

নরসিংদীর বেলাবো উপজেলার সল্লাবাদ ইউনিয়নের নীলক্ষীয়া ৩নং ওয়ার্ডের দুই মেম্বার প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষে ২০ জন আহত হয়েছে। মঙ্গলবার বিকাল ৪টার দিকে নীললক্ষীয় গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় গুরুতর আহতদের বেলাব স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ও ভৈরব চন্ডিবের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

জানা যায়, পঞ্চম ধাপে ইউপি নির্বাচনে ভোট গ্রহণকে সামনে রেখে তালা মার্কার প্রার্থী শামসুল হক এবং আপেল মার্কার প্রার্থী শহীদুল্লাহর সমর্থকদের মধ্যে কেন্দ্র দখলের কথা নিয়ে সংঘর্ষের সূত্রপাত হয়। পরবর্তীতে উভয় পক্ষের সর্মথকরা ইট-পাটকেল ও দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এতে ২০ জন আহত হয়।

শামসুল হকের সমর্থকদের মধ্যে আহতরা হল- জসীম উদ্দীন (৬৫), আক্তার হোসেন (৩৫), শরীফ (৩৭), শাহিন (২৭), জিয়াউর রহমান (৪২), মোবারক (৩০), রায়হান কবীর (২০), নজরুল ইসলাম (৩৫) ও আরমান ফকির (২৫)।

অন্যদিকে শহীদুল্লাহর সমর্থকদের মধ্যে আহতরা হল- প্রার্থী শহিদুল্লাহ (৬৬), রাশেদুল (৪০), রুহুল আমিন (১৮), বাবু (১৮), আবুল (৩৫), সোহাগ (৩০), সজিব মিয়া (২৫), সুজন (৩৫) ও দেলোয়ার (৪০)।

শামসুল হকের সমর্থক মুক্তিযোদ্ধা হাসমত আলী বলেন, আপেল প্রতীকের প্রার্থী শহীদুল্লাহর লোকজন ভোটগ্রহণের সময় কেন্দ্র দখল করে সিল মারার হুমকি দেয়। এতে উভয় পক্ষের মধ্যে এই ঘটনা ঘটে। তবে অভিযোগ অস্বীকার করে আপেল প্রতীকের প্রার্থী শহীদুল্লাহ বলেন, নির্বাচনে আমার বিজয় নেই। এই ব্যাপারে তারা আমাকে তিরস্কার করে এবং আমাকে বাড়ি থেকে জোর করে ধরে নিতে আসে এতে সংঘর্ষের সূত্রপাত ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।

বেলাব থানার ওসি (তদন্ত) উত্তম কুমার জানান, ৯৯৯ থেকে ফোন পেয়ে ঘটনাস্থলে আমরা পুলিশ পাঠিয়েছি।

এ জাতীয় আরও খবর