আমরা নিরপেক্ষ নই আমরা সত্যের পক্ষে

পদ্মা সেতু: স্বাধীনতা পরবর্তী বাঙালির সবচেয়ে বড় অর্জন

news-image

পদ্মা সেতু বাঙালির ইতিহাসে একটি মাইলফলক। অর্থনৈতিক মুক্তির পাশাপাশি এই সেতু বাঙালির জীবনের একটি বড় অর্জন। এই সেতুর সাথে মিশে আছে ১৭ কোটি বাঙালির সুখ-দুঃখ আর আর্থ-সামাজিক মুক্তির সোপান। ১৯৭১ সালে ৩০ লাখ শহিদের রক্তের বিনিময়ে আমরা যে স্বাধীনতা অর্জন করেছিলাম সেই স্বাধীনতারও মহানায়ক হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ সন্তান জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান।

বাঙালি জাতির সবচেয়ে বড় অর্জন বঙ্গবন্ধুর স্বাধীনতা। স্বাধীনতার ৫০ বছর পেরিয়ে গেলেও নিজেদের অর্থনৈতিক সক্ষমতা দেখানোর মতে দুঃসাধ্য কারো ছিলনা। নিজস্ব অর্থায়নে এতো বড় বাজেটের প্রকল্প বাস্তবায়ন করে বিশ্বকে অর্থনৈতিক সক্ষমতা দেখানোর সেই দুঃসাধ্য দেখালেন বঙ্গবন্ধুর কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

পদ্মা সেতু এখন আর বাঙালির কাছে স্বপ্ন নয়। পদ্মা সেতু এখন বাঙালির কাছে এক গৌরবোজ্জ্বল সোনালী অহংকার। এই পদ্মা সেতুই আবার বিশ্বকে জানান দিল বাঙালিদেরকে দাবিয়ে রাখা সম্ভব নয়। খরস্রোতা পদ্মার বুকে মাথা উচুঁ করে এখন উদ্বোধনের অপেক্ষায় রয়েছে স্বপ্নের সেতুটি। সরকারের মেগা প্রকল্পগুলোর মধ্যে পদ্মা বহুমুখী সেতু নির্মাণ প্রকল্পটি শেখ হাসিনা সরকারের সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জিং প্রকল্প। এ প্রকল্পের সাথে মিশে ছিল বাঙালির অস্তিত্ব, টিকে থাকার সংগ্রাম।
নি:সন্দেহে বলা যেতে পারে বর্তমান সরকারের বিভিন্ন উন্নয়নমূলক প্রকল্প যেমন- পদ্মা রেল সেতু সংযোগ প্রকল্প, চট্রগ্রামের দোহাজারী থেকে রামু হয়ে কক্সবাজার এবং রামু থেকে গুনদুম পর্যন্ত রেলপথ নির্মাণ প্রকল্প, রুপপুর পারমানবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র স্থাপন প্রকল্প, মেট্রো রেলসহ একাধিক উন্নয়নমূলক মেগা প্রকল্পের শীর্ষে ছিল এই পদ্মা বহুমুখী সেতু নির্মাণ প্রকল্পটি। শুধু শীর্ষেই নয় বরং এটি ছিল আওয়ামীলীগ সরকারের সবচেয়ে চ্যালেঞ্জিং প্রকল্প। চ্যালেঞ্জিং হলেও সেতুটি এখন উদ্বোধনের অপেক্ষায়।
ইতিমধ্যেই নানা ধরনের নানান জনের মুখরোচক গল্পে এখন ভাসছে পদ্মা সেতু নির্মাণের গল্প। রাজবাড়ীর শতবর্ষী বালিয়াকান্দি পাইলট মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক কুতুব উদ্দিন মোল্লা তার অভিব্যক্তি প্রকাশ করতে গিয়ে বলেন, পদ্মা সেতু নিয়ে জনপদে জনপদে মানুষে মানুষে প্রতিনিয়ত যে উপাখ্যান তৈরি করছে তার সমষ্টিগত রূপ পদ্মা সেতু মহাকাব্য। বঙ্গবন্ধুর স্বাধীনতা আর শেখ হাসিনার পদ্মা সেতু। স্বাধীনতা-পদ্মা সেতু দুটোই বাঙালি জাতির জন্য এক গৌরবোজ্জ্বল ইতিহাস।

একই বিদ্যালয়ের সহকারি প্রধান শিক্ষক মো: রেজাউল করিম পদ্মা সেতুকে বাঙালির অহংকার দাবি করে তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধু ক্ষুধা-দারিদ্র ও অর্থনৈতিক যে মুক্তির স্বপ্ন দেখেছিলেন সেই স্বপ্ন আজ বাস্তবায়ন করছেন তারই সুযোগ্য কন্যা আমাদের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা। পদ্মা সেতু যানজটমুক্ত, ঝামেলাবিহীন সড়ক ও ট্রেন যোগাযোগে দক্ষিণ বঙ্গসহ সারা দেশের মানুষের ভালো লাগা আর ভালোবাসার প্রতীক। পদ্মা সেতু চালু হওয়ার সাথে সাথে দেশে আমূল পরিবর্তন ঘটবে। ভাগ্য খুলবে বীরের জাতি বাঙালিদের।

এ জাতীয় আরও খবর

পদ্মা সেতু: শিল্পের জন্য প্রস্তুত গোপালগঞ্জ

এখন যানবাহনের অপেক্ষায় ফেরি

ফেরিতে পাঁচ ভাগের এক ভাগে নেমে এলো ছোট গাড়ি

বাঁশখালীতে বিদ্যুৎকেন্দ্রে বিস্ফোরণ

মানিকগঞ্জে পদ্মা সেতুর লাইভ অনুষ্ঠানে অস্ত্র নিয়ে মহড়া, সাংবাদিক গ্রেপ্তার

উল্লাসে মেতেছে পদ্মা পাড়ের মানুষ

চার মাস না যেতেই উঠছে ৯ কোটি টাকার সড়কের পিচ

পদ্মা সেতু উদ্বোধন উপলক্ষ্যে ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর পিঠা উৎসব

নদী ভাঙা মানুষের বিলাপ

সাঁতরে মঞ্চে গিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলল কিশোরী

বঙ্গবন্ধুর শ্রেষ্ঠ উপহার স্বাধীনতা, আর প্রধানমন্ত্রীর শ্রেষ্ঠ উপহার পদ্মা সেতু : পাট ও বস্ত্রমন্ত্রী

সেতুর উদ্বোধনে ফায়ার সার্ভিসের শোভাযাত্রা