আমরা নিরপেক্ষ নই আমরা সত্যের পক্ষে

মৃত্যুর ৯ দিন পর ঘর ভেঙে মাইজভাণ্ডারি ভক্তের মরদেহ দাফন

news-image

মাগুরায় মৃত্যুর ৯ দিন পর পাকা ঘর ভেঙে তৈয়ব আলী নামে এক মাইজভাণ্ডারি ভক্তের মরদেহ দাফনকে কেন্দ্র করে এলাকায় উত্তেজনা সৃষ্টি হয়েছে।
সোমবার (৩০ আগস্ট) দুপুরে মাগুরা পৌর এলাকার কাশিনাথপুর কারিগরপাড়ায় আলেম ওলামাদের নেতৃত্বে পুলিশের সহযোগিতায় একটি পাকা ঘরের ভেতর ইটের দেওয়াল তুলে ভেতরে রেখে দেওয়া তৈয়ব মোল্ল্যার মরদেহ বের করা হয়। পরে ওই গ্রামের গোরস্থানে মরদেহটি দাফন করা হয়।

এলাকাবাসী জানায়, কারিগরপাড়ার বাসিন্দা তৈয়ব আলী (৬৮) মাইজভাণ্ডারি ও লালনভক্ত গত ২২ আগস্ট নিজ ঘরে বার্ধক্যজনিত কারণে মারা যান। গ্রামবাসী তার মরদেহ দাফন করতে চাইলে মৃত ব্যক্তির ওসিয়ত মোতাবেক তার ভাতিজা আহাদ আলী জানাজা শেষে মরদেহটিকে ইসলামী শরীয়ত অনুযায়ী কাফন-দাফন না করে জানালাবিহীন একটি পাকা ঘরে দরজাটিও ইট দিয়ে বন্ধ করে দেন। এরপর ঝিনাইদহ, কুষ্টিয়া, যশোরসহ বিভিন্ন জেলার মাইজভাণ্ডারি ভক্ত অনুসারীরা ওই ঘরের সামনে মোমবাতি জ্বালিয়ে গান-বাজনা শুরু করলে গ্রামবাসীদের মধ্যে উত্তেজনা সৃষ্টি হয়।

ইসলামে এ ধরনের দাফন জায়েজ না থাকায় এলাকাবাসী, আলেম ওলামা, জনপ্রতিনিধিদের উদ্যোগে মৃত্যুর ৯ দিন পর ঘর ভেঙে মরদেহ কবরস্থানে দাফন করা হয়।

মাগুরা সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. জয়নাল আবেদিন বলেন, নিহতের আত্মীয়-স্বজন ও গ্রামবাসী মরদেহ বের করে ইসলামী শরীয়ত মোতাবেক গ্রামের গোরস্থানে মরদেহ দাফন সম্পন্ন করেছে।

এ জাতীয় আরও খবর

পদ্মা সেতু: শিল্পের জন্য প্রস্তুত গোপালগঞ্জ

এখন যানবাহনের অপেক্ষায় ফেরি

ফেরিতে পাঁচ ভাগের এক ভাগে নেমে এলো ছোট গাড়ি

বাঁশখালীতে বিদ্যুৎকেন্দ্রে বিস্ফোরণ

মানিকগঞ্জে পদ্মা সেতুর লাইভ অনুষ্ঠানে অস্ত্র নিয়ে মহড়া, সাংবাদিক গ্রেপ্তার

উল্লাসে মেতেছে পদ্মা পাড়ের মানুষ

চার মাস না যেতেই উঠছে ৯ কোটি টাকার সড়কের পিচ

পদ্মা সেতু উদ্বোধন উপলক্ষ্যে ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর পিঠা উৎসব

নদী ভাঙা মানুষের বিলাপ

সাঁতরে মঞ্চে গিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলল কিশোরী

বঙ্গবন্ধুর শ্রেষ্ঠ উপহার স্বাধীনতা, আর প্রধানমন্ত্রীর শ্রেষ্ঠ উপহার পদ্মা সেতু : পাট ও বস্ত্রমন্ত্রী

সেতুর উদ্বোধনে ফায়ার সার্ভিসের শোভাযাত্রা