আমরা নিরপেক্ষ নই আমরা সত্যের পক্ষে

মোবাইল ব্যাংকিং এর মাধ্যমে অর্থ সহায়তা দেয়ায় অনিয়ম বা দুর্নিতির সুযোগ নাই——ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. এনামুর রহমান

মতিউর রহমান ভান্ডারী, সাভার : পবিত্র রমজান মাস এবং ঈদ উপলক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাংলাদেশের ৫০ লক্ষ দরিদ্র পরিবারকে আড়াই হাজার টাকা করে ১২ শ পঞ্চাশ কোটি টাকা অনুদান দেয়া হয়েছে। এসব টাকা বিকাশ, নগদ, রকেট ও সিওর ক্যাশের মাধ্যমে সুবিধাভুগীদর মোবাইলে পাঠানো হয়েছে। সরাসরি মোবাইল ব্যাংকিং এর মাধ্যমে দেয়ার কারনে এখানে অনিয়ম বা দুর্নিতি হওয়ার কোন সুযোগ নাই বলে মন্তব্য করেছেন দূর্যোগ ব্যাবস্থাপনা ও ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী ডা. এনামুর রহমান। বৃহস্পতিবার দুপুরে সাভার সদর ইউনিয়নের কলমা ওয়াজ আলী উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে চার’শ অসাহয়, দুস্থ ও হতদরিদ্র মানুষের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণকালে একথা বলেন তিনি। এসময় উপস্থিত ছিলেন, সাভার সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হাজী মোঃ সোহেল রানাসহ স্থানীয় গণ্যমাণ্য ব্যক্তিবর্গরা।
ত্রাণ প্রতিমন্ত্রী আরও বলেন, এই অর্থ সহায়তা যদিও সামান্য তারপরও ঈদ উপলক্ষ্যে বাংলাদেশের মতো একটি দেশের দরিদ্র মানুষদেরকে দেয়া ১২ শ’ পঞ্চাশ কোটি টাকা সারা বিশে^র কাছে একটা অনন্য দৃষ্টান্ত। এছাড়া পঞ্চাশ লক্ষ পরিবারকে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে ২০ কেজি করে চাল দেয়া হবে। সিটি কর্পোরেশন ও পৌরসভা এলাকায় সাড়ে ১২ লক্ষ পরিবারকে দশ টাকা কেজি দরে চাল দেয়া হবে। বারো লক্ষ পরিবারকে মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় থেকে ২০ কেজি করে চাল দেয়া হবে এবং তিন লক্ষ বিশ হাজার পরিবারকে মৎস ও প্রাণী সম্পদ মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে ভিজিএফ এর আওতায় ২০ কেজি করে চাল দেয়া হবে। সব মিলিয়ে এই মে মাসে ঈদের আগেই পাঁচ কোটি লোক খাদ্য সহায়তা পাবে বলেও জানান তিনি। বিতরণ করা ত্রাণ সামগ্রীর মধ্যে রয়েছে- চাল, ডাল, পিঁয়াজ, আলু, তেলসহ নিত্য প্রয়োজনীয় খাদ্যদ্রব্য।