আমরা নিরপেক্ষ নই আমরা সত্যের পক্ষে

সিলেটে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে নিহত ১

news-image

সিলেটের গোলাপগঞ্জের ফুলবাড়ি ইউনিয়নে নির্বাচকে কেন্দ্র করে পুলিশের সঙ্গে গ্রামবাসীর সংঘর্ষে এক রিকশা মেকানিকের মৃত্যু হয়েছে।

রোববার রাত পৌনে ১০টার দিকে পুলিশের সঙ্গে জামায়াত সমর্থিত প্রার্থীর সমর্থকদের সংঘর্ষ চলাকালে তার মৃত্যু হয়।

নিহত ব্যক্তির নাম আব্দুস সালাম (৫০)। তিনি গোলাপগঞ্জ উপজেলার লক্ষীপাশা ইউনিয়নের দক্ষিণভাগ রাম্পা গ্রামের বাসিন্দা। আব্দুস সালাম স্থানীয় বৈটিকর বাজারে দীর্ঘদিন থেকে মেকানিকের কাজ করে আসছিলেন বলে জানিয়েছে স্থানীয়রা।

তবে আরেকটি সূত্র জানায়, রোববার অনুষ্ঠিত নির্বাচনে ফুলবাড়ি ইউনিয়নে বিজয়ী হন আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীকে প্রার্থী আব্দুল হানিফ খান। ফলাফল ঘোষণার পরই চশমা প্রতীকের প্রার্থী জামায়াতে ইসলামীর নেতা এমরান হোসেনের সমর্থকরা নির্বাচনে অনিয়মের অভিযোগ এনে সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে সিলেট-গোলাপগঞ্জ সড়কের বৈটিকর এলাকায় সড়ক অবরোধ করেন।

এ সময় উভয় পাশে অসংখ্য যানবাহন আটকা পড়ে। অবরোধ সরাতে পুলিশ চেষ্টা চালালে সংঘর্ষ তৈরি হয়। এসময় বৈটিকর বাজারের অন্তত ২৫টি দোকান ভাংচুর করা হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ রাবার বুলেট ও টিয়ারগ্যাস নিক্ষেপ করে। সংঘর্ষ চলাকালে আব্দুস সালাম গুলিবিদ্ধ হলে তাৎক্ষণিক তাকে সিলেটের ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

নিহতের বিষয়টি নিশ্চিত করে নিহতের ছেলে জসিম উদ্দিন বলেন, গুলিবিদ্ধ হয়ে আমার পিতা মৃত্যুবরণ করেছেন।

মেকানিকের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পুলিশ সুপার ফরিদ উদ্দিন।